এবার অন্টারিও মানবাধিকার কমিশনের প্রধান কমিশনার মনোনীত হলেন কৃষ্ণাঙ্গ নারী!

AdvertisementCBN-Leaderate

সাইফুল্লাহ মাহমুদ দুলাল ||

কানাডায় অন্টারিও প্রদেশে এবার মানবাধিকার কমিশনের প্রধান কমিশনার মনোনীত হলেন কৃষ্ণাঙ্গ নারী প্যাট্রিসিয়া ডিগুয়ের! বর্তমানে তিনি সুপরিয়র কোর্ট অফ জাস্টিসের একজন ডেপুটি জজ। বিগত কুড়ি বছর ধরে তিনি অন্টারিওর মানবাধিকার ট্রাইব্যুনালের ভাইস-চেয়ারসহ বেশ কয়েকটি গুরুত্বপূর্ণ পদে ভূমিকা পালন করেছেন।

ইতোপূর্বে প্যাট্রিসিয়া ডিগুয়ের আইনী সহায়তা অন্টারিও, অন্টারিও অফ প্যারোল বোর্ড এবং ইমিগ্রেশন এবং শরণার্থী বোর্ডের পরিচালনা পর্ষদের সদস্যও ছিলেন। এছাড়াও তিনি ব্ল্যাক লু স্টুডেন্টস অ্যাসোসিয়েশন অফ কানাডার প্রতিষ্ঠাতা সদস্য এবং সমর্থক এবং কানাডিয়ান অ্যাসোসিয়েশন অব ব্ল্যাক লায়ার্সের প্রতিষ্ঠাতা বোর্ড সদস্য।

নিয়োগ পেয়ে প্যাট্রিসিয়া ডিগুয়ের এক প্রতিক্রিয়ায় বলেন, ‘অন্টারিও মানবাধিকার কমিশনের নেতৃত্ব দেয়ার চাবিকাঠি হাতে পেয়ে আমি গভীরভাবে সম্মানিত, বিনীত ও উচ্ছ্বসিত’। তিনি আরো বলেন, বিশ্বব্যাপী দুটি মহামারীর ‘কোভিড-১৯ এবং বর্ণবাদ’ সংকট মোকাবেলায় আমাদের সম্প্রদায়গুলিকে একত্রিত করেছি।

উল্লেখ্য, জাস্টিন সরকার সরকার কানাডায় সকল বর্ণবাদের বিরুদ্ধে দাঁড়াবে। সেজন্য লিবারেল সরকার শুরু থেকেই নানামুখী পদক্ষেপ নিচ্ছে, একথা জানিয়েছেন কানাডার প্রধানমন্ত্রী জাস্টিন ট্রুডো।

সম্প্রতি কানাডায় আবাসিক স্কুল থেকে আদিবাসী শিশুর মৃতদেহের দেহাবশেষ উদ্ধারের পর বর্ণবাদ, ধর্মবাদের বিরুদ্ধে সমতা আনার জন্য গত মাসে কানাডার সুপ্রিম কোর্টে ১৪৬ বছরের ইতিহাসে এই প্রথম নিয়োগ দিলেন একজন ভারতীয় মুসলিম বিচারপতি মাহমুদ জামাল।

অপরদিকে,  গত ৬ জুলাই কানাডার ইতিহাসে ঘটলো আরেক যুগান্তকারী রেকর্ড। প্রধানমন্ত্রী জাস্টিন ট্রুডো ঘোষণা দিলেন- প্রথমবারের মতো দেশটির গভর্নর জেনারেল হিসেবে মনোনীত হলেন আদিবাসী সম্প্রদায়ের নেতা ম্যারি সিমন। তিনি রাষ্ট্রপ্রধান রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথের প্রতিনিধিত্ব করবেন।

Facebook Comments
Print Friendly, PDF & Email
CBN-Leaderate