কানাডার টরন্টোয় বাংলাদেশি ফার্মাসিস্টদের মিলনমেলা (ভিডিও)

AdvertisementLeaderboard
কানাডায় বসবাসরত বাংলাদেশি ফার্মাসিস্ট ও তাদের পরিবারের একাংশ

কানাডায় বসবাসরত বাংলাদেশি ফার্মাসিস্টদের সংগঠন ‘অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশি ফার্মাসিস্টস ইন কানাডা (এবিপিআইসি)। শনিবার ছিলো সংগঠনটির দ্বিতীয় বার্ষিক সাধারন সভা এবং সাংস্কৃতিক সন্ধ্যা।

এ উপলক্ষে টরন্টোর ৯ ডজ রোডের রয়্যাল কানাডিয়ান লিজিয়ন হলে পরিবার-স্বজনদের নিয়ে অংশ নেন এখানকার বাংলাদেশি ফার্মাসিস্টরা। সবাই একসঙ্গে আড্ডায় মেতে ওঠেন।

IMG_0193

সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান উপভোগ করছেন বাংলাদেশি ফার্মাসিস্ট ও তাদের স্বজনরা

সংগঠনটির কার্যক্রম নিয়ে শুভেচ্ছা বক্তব্য দেন সাংগঠনিক সম্পাদক ফেরদৌস আমীন মেহেদী, সদস্য মল্লিক মাহমুদ হোসেইন, বোর্ড অব ডিরেক্টর-এর সদস্য শহিদ খন্দকার, এবং বোর্ড অব ডিরেক্টরের চেয়ারম্যান আহমেদ আব্দুল্লাহ।IMG_0148 copy

।। এবিপিআইসি'র বোর্ড অব ডিরেক্টরের চেয়ারম্যান আহমেদ আব্দুল্লাহ'র সঙ্গে অতিথিরা ।।

সিবিএন২৪’কে দেওয়া সাক্ষাৎকারে আহমেদ আব্দুল্লাহ বলেন, বাংলাদেশ থেকে নতুন ফার্মাসিস্টরা আসলে তাদেরকে প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা করা হয় সংগঠনের মাধ্যমে। এটি এদেশে তাদের জন্য বড় একটি সুযোগ, যার জন্য এখন পাশের হার অনেক বেড়েছে।

তিনি বলেন, ভবিষ্যতে একটি ফার্মেসি ক্লাব এবং লাইব্রেরি করারও ইচ্ছা আছে তাদের।

অনুষ্ঠানে ফেরদৌস আমিনের সম্পাদনায় ফার্মাসিস্টদের লেখা নিয়ে ‘এবিপিআইসি স্মরণিকা ২০১৭’ প্রকাশিত হয়। পাশপাশি একজন ফার্মাসিস্টের লেখা বই ‘ভালোবাসার যোগ-বিয়োগ’-এর মোড়ক উন্মোচন করা হয়।

IMG_5903

'এবিপিআইসি স্মরণিকা ২০১৭' এর মোড়ক উন্মোচন

অনুষ্ঠানটিকে সাফল্যমণ্ডিত করতে বিজ্ঞাপনদাতাদের ধন্যবাদ জানান সংগঠনটির আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদক এবং এই বার্ষিক সাধারণ সভার সার্বিক সমন্বয়ক মুহাম্মদ মাহবুবুল হক।

সিবিএন২৪’কে তিনি বলেন, কানাডায় এবার তাদের সংগঠনের ১৯ জন ফার্মাসিস্ট সনদ পেয়ে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে ফার্মাসিস্ট হিসেবে যোগদান করেছেন। বাংলাদেশি কমিউনিটির জন্য এটি বড় একটি অর্জন। এ বছর সংগঠনটির পক্ষ থেকে একটি বনভোজন আয়োজনের পাশাপাশি স্বেচ্ছায় রক্তদান কর্মসূচি পালন করা হতে পারে বলে জানান তিনি।

এবিপিআইসি’র সভাপতি ফখরুদ্দিন আহমেদ সিবিএন২৪’কে বলেন, কানাডায় বাংলা ভাষাভাষী কমিউনিটিকে বিভিন্নভাবে ফার্মাসিস্টরা সহায়তা করে থাকেন। বিশেষ করে সিনিয়র সিটিজেনদের জন্য তারা কাজ করে যাচ্ছেন।

এবারে R. Ph লাইসেন্স যারা পেলেন তারা হলেন, মুজাহিদুল ইসলাম সোহেল, আফসানা রুনা, মো শফিউল আলম, হারুন অর রশিদ, মো নাজমুল ইসলাম, আব্দুল্লাহ আল মামুন, মো মাহবুবুল হাসান, রিফাত করিম, মো শাইখুল মিলাত, নাসরিন আকতার, রিয়া জুলিয়া, প্রবীর কুমার দাস, মনোরঞ্জন কর্মকার, কাজী জুনায়েদ, শারমিন জাহান, স্বপ্না সুলতানা, রুবাইদা, মাসুমা সিদ্দিকা, এবং মারুফুল হাসান।

পদোন্নতি প্রাপ্তরা হলেন, গৌতম পোদ্দার (ম্যানেজার হিসেবে পদোন্নতি), শেখ মোহাম্মদ আনোয়ারুল আজিম (ম্যানেজার হিসেবে পদোন্নতি), এবং মোহাম্মদ কবির (এসোসিয়েট ডিরেক্টর হিসেবে পদোন্নতি)। পিএইচডি নিশ্চিত করেছেন দুইজন। তারা হলেন- সাইফুর রহমান খান এবং মইনুল ইসলাম।

 

(সিবিএন২৪-এ বিজ্ঞাপন দেওয়া কিংবা যে কোন প্রয়োজনে যোগাযোগ করুনঃ ৬৪৭-৫৭২-৫৬০০ অথবা, 
cbn24.ca@gmail.com)
Facebook Comments
Print Friendly, PDF & Email