কানাডা থেকে ভারতে ফিরল চুরি যাওয়া মা অন্নপূর্ণার মূর্তি

41
Advertisement

সম্প্রতি কানাডা থেকে ফিরিয়ে আনা ১৮ শতাব্দীর মা অন্নপূর্ণার মূর্তি বসানো হল কাশীর বিশ্বনাথ মন্দির চত্ত্বরের ভেতর তৈরি হওয়া নব নির্মিত অন্নপূর্ণা মন্দিরে। সোমবার এই মূর্তি বসানো হয়। এই মূর্তি ফিরিয়ে আনার পর তা গোটা রাজ্যে ঘোরানো হয় জমকালো রথে করে এবং রবিবার মধ্যরাতে তা বারাণসীতে প্রবেশ করে।

প্রসঙ্গত, গ্র‌্যান্ড অনুষ্ঠানের মাধ্যমে উত্তরপ্রদেশ সরকারের প্রতিনিধিদের হাতে এই মূর্তি তুলে দেওয়ার পর ১১ নভেম্বর দিল্লি থেকে শোভাযাত্রা শুরু হয় এই মূর্তি নিয়ে। দিল্লি থেকে রথযাত্রা অযোধ্যা, জনপুর হয়ে রবিবার গভীর রাতে মহাদেবের শহর কাশীতে পৌঁছায়। মা অন্নপূর্ণার আগমনে মন্দির চত্বর বেদ মন্ত্র, ডমরু ও শঙ্খ ধ্বনিতে মুখরিত হয়ে ওঠে।

নব নির্মিত মন্দিরে প্রতিষ্ঠা হয় দেবী অন্নপূর্ণার

সোমবার কাশীর অন্নপূর্ণা মন্দিরে দেবীর ‘‌প্রাণ প্রতিষ্ঠা’‌ অনুষ্ঠানে যোগ দেন যোগী আদিত্যনাথ। ডিভিশনাল কমিশনার দীপক আগরওয়াল বলেন, ‘‌এই মন্দিরটি তৈরি হয়েছে ইশাণ কোণে (‌উত্তর-পূর্ব দিকে)‌ বাস্তু শাস্ত্র মেনে এবং এই মন্দিরটি কাশী বিশ্বনাথ ধাম (করিডর) এলাকার উত্তর প্রবেশদ্বার সংলগ্ন।’‌ এদিন যোগী আদিত্যনাথ বলেন, ‘‌কাশীকে বাবা বিশ্বনাথের আবাস বলে চিহ্নিত করা হয়। জাতির জনক মহাত্মা গান্ধী যখন ১৯১৬ সালে এখানে এসেছিলেন তখন তিনি বাবা বিশ্বনাথ মন্দিরের রাস্তা ও জঞ্জাল দেখে খুব তীক্ষ্ণ মন্তব্য করেছিলেন। যারা গান্ধীজির নামে ক্ষমতা পেয়ে তার নামে রাজনীতি করতেন, তারা গান্ধীজির কথাও শোনেননি।আগে ভারতে মূর্তি চোরাচালানের মাধ্যমে দেশ বিশ্বের কাছে পরিচিত ছিল। কিন্তু এখন তা খুঁজে খুঁজে ফিরিয়ে আনা হচ্ছে দেশে।’‌

কীভাবে চুরি হয়েছিল মা অন্নপূর্ণার মূর্তি

প্রায় একশ বছর আগে এই মূর্তিটি কাশী থেকে চুরি হয় এবং কানাডায় পাচার করে দেওয়া হয়। ১৮ শতাব্দীর দেবী অন্নপূর্ণার মূর্তি কাশী থেকে ১৯১৩ সালে চুরি হয়। এরপর তা কানাডায় পাচার করে দেওয়া হয়। মা অন্নপূর্ণা অন্নের দেবী বলে চিহ্নিত। ১৭ সেন্টিমিটার লম্বা ও ৯ সেন্টিমিটার চওড়া এই প্রতিমার এক হাতে অন্ন ও অন্য হাতে পায়েস ধরা। এই প্রতিমা কানাডার রেজিনা বিশ্ববিদ্যালয়ের ম্যাকেঞ্জি আর্ট গ্যালারিতে রাখা ছিল। কানাডায় আয়োজিত ওয়ার্ল্ড হেরিটেজ সপ্তাহে ভারতীয় শিল্পী দিব্যা মেহরা যখন মূর্তিটি দেখেন তখন তিনি বিষয়টি নিয়ে উদ্যোগী হন এবং ভারত সরকারকে জানান।

৪০টি প্রাচীন মূর্তি ভারতে ফিরেছে প্রসঙ্গত, গত বছর কেন্দ্রীয় সংস্কৃতি মন্ত্রী প্রহ্লাদ প্যাটেল জানান যে ২০১৪ সাল থেকে ২০২০ সাল পর্যন্ত মোদী সরকার ৪০টি প্রাচীন মূর্তি একাধিক দেশ থেকে ভারতে ফিরিয়ে এনেছে। ভারতের প্রত্নতাত্ত্বিক রেকর্ড অনুযায়ী, ১৯৭৬ সাল থেকে ২০১৪ সাল পর্যন্ত ভারতে ১৩টি মূর্তির প্রত্যাবর্তন ঘটেছে। তিনি সেই সময় জানিয়েছিলেন যে ৭৫-৮০টি চোরাই প্রাচীন জিনিস ভারতে ফেরত আসা বাকি রয়েছে যা দীর্ঘ সময় ধরে আইনি জটিলতায় আটকে রয়েছে।

Facebook Comments
Print Friendly, PDF & Email