মা এবং অসীম ভালবাসা

1073
AdvertisementLeaderboard

মোহাম্মদ আলী খান (অর্ণব)

।। হ্যালিফ্যাক্স, কানাডা থেকে ।।

‘বৃদ্ধ নারী সেই কখন থেকে ছেলেটার হাতে হাত বুলাচ্ছে দেখ’ – তানভীর ভাইয়ের কথাটা শুনে পিছনে তাকালাম। দেখি এক মা তার ২০-২২ বছরের ছেলেকে নিয়ে শপিংমলের ফুডকর্ণারে বসে আছে। ছেলেটার হাতে পরম মমতায় হাত বুলিয়ে বুলিয়ে আদর কর‍ছে আর গল্প করছে। মুহূর্তেই পৃথিবীর এক অসম্ভব নির্মল সুন্দর দৃশ্য প্রত্যক্ষ করলাম।

আমি তাদের কাছে একটু অগ্রসর হয়ে সম্ভাষণ জানিয়ে বললাম- ‘হাই, আমি একজন বাংলাদেশি লেখক (ওদের কাছে গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তি সাজার চেষ্টা করলাম! এতে করে তারা আমাকে সহজে বিশ্বাস করে আমাকে ওদের সম্পর্কে সব বলবে)। যদি কিছু মনে না কর তবে একটা কথা জিজ্ঞাসা করতে পারি?’ ওই নারী বললেন, ‘হ্যাঁ, অবশ্যই।’ আমি বললাম, ‘তোমরা কি অনেকদিন পর দেখা করছ? তোমাদেরকে দেখে অনেক ভাল লাগল। আমার কৌতূহল থেকে জিজ্ঞাসা করছি।’ বললেন, ‘ও আমার ছেলে টিমোথি। ও ইউ.এস.এ তে জব করে, আর আমি আছি কানাডায়। আজ ৩ বছর পর আমরা দেখা করছি।’

আমার তখন আম্মার কথা মনে পড়ল। আজ প্রায় এক বছর হয়ে গেল, আমি আম্মার কাছ থেকে দূরে। আমি যখন দেশে যাব, আমার আম্মাও হয়ত আমাকে এভাবে আদর করবে। সেদিন সকালবেলা আম্মার সাথে স্কাইপে কথা বলছিলাম। আম্মা জিজ্ঞাসা করলেন, ‘সকালে কি খেয়েছিস?’ আমি ঐদিন সকালে দেরী করে ঘুম থেকে উঠেছিলাম তাই কিছু খাইনি। আমি আম্মাকে জবাব দিলাম, ‘ভাত, মুরগীর মাংস আর ডিম ভাজা থেয়েছি।’ কিন্তু আম্মা আমার মুখ দেখে বুঝে গেলেন, আমি কিছুই খাইনি। এই হচ্ছে মা!

যার মা মারা গেছেন, শুধুমাত্র সেই জানে মা কী এবং মায়ের তুলনা কী? আর আমাদের যাদের মা এখনো বেঁচে আছেন, অনেক ক্ষেত্রেই দুঃখজনকভাবে আমরা মায়ের মর্ম উপলব্ধি করতে পারিনা। মায়ের ভালবাসা আসলেই ভাষায় লিখে প্রকাশ করা অসম্ভব। সন্তানের কষ্টে, সন্তানের চেয়ে মা কষ্ট অনুভব করেন অনেক বেশী। অথচ আমরা (সমাজের অধিকাংশ মানুষ) মায়ের কষ্টের মূল্যায়ন করতে জানিনা।

মা কখনোই সন্তানের কাছে কিছু চায় না, টাকা চায় না, বাড়ি চায় না। চায় না পার্থিব কোনো কিছু। সন্তানের কাছে মায়ের প্রত্যাশা শুধুমাত্র একটু ভালবাসা, একটু সহমর্মিতা দেখলেই, মা সাত আসমানের চেয়েও বেশি আনন্দিত হন। মা সন্তানের জন্য প্রয়োজনে নিজের জীবন দিতে কার্পণ্য বোধ করেন না। আল্লাহ্ ও নবীর পরেই মায়ের স্থান, তারপর বাবার স্থান।

মায়ের প্রতি সন্তানের দায়িত্ব অনেক। বর্তমান অত্যাধুনিক আল্ট্রা মর্ডান, ওপেন মাইন্ডেড, ওভার স্মার্ট সমাজের তরুণ প্রজন্মের অনেক বিবাহিত যুবকদের ক্ষেত্রে (সকলের ক্ষেত্রে নয়) মা এবং স্ত্রীর হকের মাঝে সামঞ্জস্য রক্ষা করা সম্মুখ সমরযুদ্ধের চেয়ে কঠিনতর বিষয়। মায়ের কথা শুনে অন্যায়ভাবে স্ত্রীকে কষ্ট দেওয়া হারাম, আবার স্ত্রীর অন্যায় আবদার রাখতে যেয়ে মাকে কষ্ট দেয়া হারাম। এই জটিলতা নিরসনে ধর্মীয় নির্দেশ অনুসারে সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা অপরিহার্য। স্ত্রীর সাথে মাকে তুলনা করা অনুচিত। মা দিবসে মাকে নিয়ে ফেসবুকে স্টাটাস দিয়ে, মায়ের ভালবাসা নিয়ে টুইটারে টুইট করে, মঞ্চ কাঁপিয়ে বক্তব্য দিয়েই মায়ের প্রতি কর্তব্য শেষ হয়ে যায়না। আর বছরে একদিন আনুষ্ঠানিকভাবে মায়ের প্রতি ভালবাসা প্রকাশ করেই মায়ের হক আদায় হয়না। মাকে অসীমভাবে ভালবাসতে হবে, যে ভালবাসার কোনো সীমা নাই। ভাল থাকুক এই পৃথিবীর সব মা, সেই শুভ্র সুন্দর পৃথিবীর প্রত্যাশায়।

মোহাম্মদ আলী খান (অর্ণব) 
১ম বর্ষ, কম্পিউটার সায়েন্স বিভাগ, সেন্ট মেরী’স ইউনিভার্সিটি, হ্যালিফ্যাক্স, কানাডা।
Facebook Comments
Print Friendly, PDF & Email